শুভ হিন্দু নববর্ষ

শুভ হিন্দু নববর্ষ ১৪২৮! এক হাজার চারশ সাতাশ বছর পরে বাঙালির নববর্ষের সাম্প্রদায়িকরণ সম্পূর্ণ হলো। এখন থেকে বাংলা নববর্ষ হিন্দু সম্প্রদায়ের কাছে হিন্দু নববর্ষ। অন্তত বাঙালিদের ভিতরে বর্তমানে যাঁরা হিন্দী হিন্দু হিন্দুস্তানের প্রবক্তা নেতা কর্মী ও সমর্থক। এবং ভোটার। ১লা জানুয়ারী কিন্তু এনারা শুভ খৃষ্টান নববর্ষ বলে নি। কিন্তু আজ, এনাদের এক নেতা শুভ হিন্দু নববর্ষ বলেই ১৪২৮ এর অশুভ সূচনা ঘটিয়ে দিলেন। বাংলা নববর্ষ ভাগ হয়ে গেল হিন্দু মুসলিমে। গত বছর অব্দিও যে নববর্ষই ছিল বাংলার প্রধান অসাম্প্রদায়িক উৎসব পার্বণ। বাঙালি হিন্দু মুসলিম এই একটি দিন সাম্প্রদায়িক ভেদাভেদ ভুলে গিয়ে নিজেদের বাঙালি বলেই অনুভব করতে অভ্যস্থ ছিল। কিন্তু না। হিন্দী হিন্দু হিন্দুস্তানের প্রবক্তাদের বড়ো ভয় একটাই। পাছে বাংলার দুই সম্প্রদায় কোনভাবে ধর্মীয় পরিচয়ের উর্ধে উঠে অখন্ড বাঙালিয়ানায় উদ্বোধিত হয়ে যায়। ঠিক যে ভয় থেকেই ব্রিটিশ বাঙালি জাতির কোমর ভেঙ্গে দিয়ে গিয়েছিল। হিন্দী হিন্দু হিন্দুস্তানের প্রবক্তারাও সেই ব্রিটিশেরই পুরানো ফর্মুলাকে পাখির চোখ করে এগোচ্ছেন। এবং তারা এই বিষয়ে যথেষ্ঠই সফল।

বিস্তারিত পড়ুন